যারা ইসলামের নাম নিয়ে মানুষ হত্যা করছে তারা ইসলামের শত্রু : আশফাক আহমদ

প্রকাশিত: ১২:৫১ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ২৭, ২০১৬

কান্দিগাঁও ইউনিয়নে জঙ্গিবাদ সন্ত্রাস প্রতিরোধ কমিটির সভা

সিলেট সদর উপজেলার পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আশফাক আহমদ বলেছেন, ইসলাম শান্তির ধর্ম। ইসলামে জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসের কোন স্থান নেই। যারা ইসলামের নাম নিয়ে জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাস করছে তারা ইসলামের শত্র“। এ ধরণের ব্যাধি থেকে দেশ ও জাতিকে রক্ষা করতে মসজিদের ইমাম, শিক্ষক, পিতামাতা সহ ধর্মীয় নেতাদেরকে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে হবে।

গতকাল ২৬ জুলাই সকালে সিলেট সদর উপজেলার ৮নং কান্দিগাঁও ইউনিয়ন পরিষদ মিলনায়তন ইউনিয়ন জঙ্গিবাদ, সন্ত্রাস প্রতিরোধ কমিটি আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন তিনি। ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ নিজাম উদ্দিনের সভাপতিত্বে ও সচিব তোফায়েল হোসেন ভূঁইয়ার পরিচালনায় আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মীর মোহাম্মদ মাহবুবুর রহমান। তিনি বলেন বাংলাদেশের মানুষের মধ্যে সা¤প্রদায়িক স¤প্রীতি সবসময়েই বজায় রয়েছে। মুসলমানদের ধর্মীয় উৎসবে হিন্দুরা সহযোগিতা করে এবং হিন্দুদের ধর্মীয় আচার অনুষ্ঠানে মুসলমানরা তাদের পাশে থাকে। এ ধরণের স¤প্রীতির দেশে সন্ত্রাস জঙ্গিবাদের কারণে অশান্তি বিরাজ করতে পারে না। তাই এ ক্ষেত্রে সম্মিলিতভাবে সন্ত্রাসী গোষ্ঠির মোকাবেলা করতে হবে। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন জালালাবাদ থানা অফিসার ইনচার্জ আক্তার হোসেন, সোনাতলা সিরাজুল ইসলাম আলিম মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা হাফিজুর রহমান। অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ঘোপাল কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের ইমাম ও খতিব মোঃ হেলাল উদ্দিন খান, অনন্তপুর জামে মসজিদের ইমাম ও খতিব মাওলানা আবুল কালাম আজাদ, বলাউরা জামে মসজিদের ইমাম আনোয়ার হোসেন, জাঙ্গাইল জামে মসজিদের ইমাম মাওলানা আব্দুস সাত্তার, ঘোপাল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা সুষমা দেবী, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের আজম আলী, মোল­ারগাঁও সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নিরেষ চক্রবর্তী। স্বাগত বক্তব্য রাখেন ৯নং ওয়ার্ডের মেম্বার আব্দুল জাহির। শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলওয়াত করেন নৈরপুতা জামে মসজিদের ইমাম হাফিজ মাওলানা বদর উদ্দিন, গীতা পাঠ করেন বাদাঘাট উচ্চ বিদ্যালয় এন্ড কলেজের প্রিন্সিপাল প্রভু রঞ্জন সরকার। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, জেলা যুবলীগ নেতা এসএম শায়েস্তা তালুকদার, সাংবাদিক এম.রহমান ফারুক, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা রুহুল তালুকদার, যুবলীগ নেতা কয়েস, উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা সেলিম আহমেদ এবং ইউনিয়ন পরিষদের সকল সদস্যবৃন্দ।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বমোট পাঠক


বাংলাভাষায় পুর্নাঙ্গ ভ্রমণের ওয়েবসাইট