আউটসোর্সিংয়ে আয় করে মায়ের স্বপ্ন পূরন করা এক উদ্যোক্তার গল্প

প্রকাশিত: ১২:২৬ পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ৩০, ২০২১

আউটসোর্সিংয়ে আয় করে মায়ের স্বপ্ন পূরন করা এক উদ্যোক্তার গল্প

তানজীন মাহমুদ (তনু)


আউটসোর্সিংয়ে আয় করে মা’র স্বপ্ন ছিলো বিমানে চড়বে তাই মাকে নিয়ে বিমানে চড়ান আউটসোর্সিংয়ে আয় করা এক তরুন স্বপ্নবাজ পুরুষ ছাব্বির আহমদ (২১)। তার বাড়ি সিলেটের জকিগনঞ্জ থানার মানিকপুর গ্রামে। এলাকার সবার কাছে পরিচিত একজন শিক্ষার্থী হিসেবে। কিন্তু অনলাইন জগতে তার আরেক পরিচয় একজন সফল ফ্রিল্যান্সার হিসেবে।

পড়াশুনার পাশাপাশি ফ্রিল্যান্সিং করে মাসে প্রায় লক্ষ টাকা আয় করেন বলেও জানান ছাব্বির আহমদ। এখন তিনি অন্যদের প্রশিক্ষণ দিতে চাচ্ছেন অনলাইনে কাজ করে উপার্জন করার। তরুণ এই টগবগে যুবক দেশের মানুষকে প্রশিক্ষণ দিতে সক্ষম হবেন বলে জানান। তরুণ এই সফল যোদ্ধা ছাব্বির আহমদ প্রতিবেদককে জানান, বর্তমানে চাকরি পাওয়া খুবই কঠিন বিষয় হয়ে পড়েছে। হাজার হাজার বেকার ঘুরে বেড়াচ্ছেন। অনলাইনে প্রচুর কাজ রয়েছে। এখান থেকে প্রতি মাসে লাখ লাখ টাকা আয় করা সম্ভব। তাই চাকরির পেছনে না ঘুরে একটা কোর্স করে অনলাইনে কাজ করেও স্বাবলম্বী হওয়া যায়।

এক সময় ছাব্বির আহমদ এর পকেটেও ১০ টাকা ছিল না। প্রয়োজনের সময় হাত পাততে হতো পরিবারের কাছে বিষয়টা মেনে নিতে অনেকটা কষ্ট হতো ছাব্বির আহমদের। নিজে আত্মনির্ভরশীল হওয়ার তাগিদে কষ্ট করে সফল হওয়ার গল্প নিজেই জানালেন তিনি।

ছাব্বির আহমদ জানান, কৌতুহলবসত অনলাইনে আর্নিং বিষয়ে ঘাটাঘাটি করতে গিয়ে আগ্রহী হয়ে উঠি ফ্রিল্যান্সিং পেশার প্রতি। পরবর্তীতে স্বাবলম্বী হওয়ার লক্ষ নিয়ে কাজ করতে শুরু করি। প্রথমদিকে অনেক প্রতারণা ও বিড়ম্বনার শিকার হলেও অদম্য চেষ্টায় আমি এখন একজন সফল উদ্যোক্তা।

ফ্রিল্যান্সিংয়ের সাথে যুক্ত আছেন দুই বছরের বেশি সময় ধরে। ছাব্বির আহমদ এই প্লাটফর্ম থেকে মাসিক প্রায় ১ লাখ টাকা আয় করেন। অনলাইনে আর্নিং কাজে শিক্ষাগত যোগ্যতা বাঁধা হতে পারেন না। যেকোন বয়সী, যেকোন পেশার মানুষ যুক্ত হতে পারেন এর সাথে।

একাধিক প্লাটফর্মে দেশি-বিদেশি বায়ারদের চাহিদা অনুযায়ী কাজ করেছেন। এছাড়া বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি উদ্যোগে আয়োজিত ফ্রিল্যান্সিং ও আউটসোর্সিং বিষয়ে সভা-সেমিনার ও প্রশিক্ষণ কোর্সে বিভিন্ন সময় যোগ দিয়েছিলেন ছাব্বির আহমদ। ফ্রিল্যান্সার ছাব্বির আহমদ সমাজের শিক্ষিত বেকার যুবকদের চাকরি খোঁজার পাশাপাশি অনলাইনে উপার্জনের বিভিন্ন কোর্স করে আয় করার আহ্বান জানান। অনলাইনে কাজের অভাব নেই, দক্ষ কাজের লোকের অভাব।

ছাব্বির আহমদ সরকারের কাছে বিশেষ আবেদন জানিয়ে বলেন, সরকার যদি ভালোভাবে ফ্রিল্যান্সিং ও আউটসোর্সিংয়ের কর্মীদের নিয়ে ভাবে দেশে বেকার অনেকটাই দূর করা সম্ভব।


  •