বাড়ি ভাড়া ভাতা পেতে সরকারি বাসায় থাকতেই হবে : প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত: ৭:০৭ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ২২, ২০২০

বাড়ি ভাড়া ভাতা পেতে সরকারি বাসায় থাকতেই হবে : প্রধানমন্ত্রী

সরকারি কর্মকর্তারা যদি নিজেদের জন্য বরাদ্দ সরকারি বাসায় না থাকেন তাহলে তাদের বাড়ি ভাড়া ভাতা না দিতে পদক্ষেপ নেয়ার জন্য মঙ্গলবার সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

তিনি সরকারি বাসভবন গণভবন থেকে ভার্চ্যুয়ালি জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) বৈঠকে সভাপতিত্বকালে এ নির্দেশনা দেন।

রাজধানীর এনইসি সম্মেলন কক্ষে বৈঠকের পর সাংবাদিকদের এ বিষয়ে অবহিত করেন পরিকল্পনা কমিশনের সিনিয়র সচিব আসাদুল ইসলাম।

তিনি বলেন, ‘সরকারি কর্মকর্তাদের বরাদ্দ দেয়া সরকারি বাসাগুলোতে থাকতেই হবে। অন্যথায়, তারা বাড়ি ভাড়া ভাতা পাবেন না। প্রধানমন্ত্রী এ বিষয়ে ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দিয়েছেন।’

রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিকতর উন্নয়ন (প্রথম সংশোধিত) প্রকল্পের আওতায় বাসা নির্মাণ নিয়ে আলোচনার সময় প্রধানমন্ত্রীর এ নির্দেশনা আসে।

তিনি বলেন, ‘সবাইকে তাদের জন্য বরাদ্দ বাসায় থাকতে হবে।’

নতুন বেতন স্কেলে বাড়ি ভাড়া ভাতা বৃদ্ধি পাওয়ার ফলে অনেক ক্ষেত্রে সরকারি কর্মকর্তা, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও কর্মচারীরা টাকা বাঁচাতে সরকারি বাসায় না থেকে কম খরচে ভাড়া বাসায় থাকেন জানিয়ে সচিব বলেন, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকর্তাসহ সবার জন্য প্রযোজ্য হবে।

অর্থ মন্ত্রণালয় এ নির্দেশনা বাস্তবায়নে পদক্ষেপ নেবে বলে জানান তিনি।

সভায় প্রধানমন্ত্রী বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়গুলো স্বায়ত্তশাসন ভোগ করলেও তাদের আর্থিক ব্যয়ের জবাবদিহি ব্যবস্থা থাকতে হবে।

শেখ হাসিনা বলেন, প্রতিটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, বিশেষ করে বড় প্রতিষ্ঠানগুলোর মহাপরিকল্পনা থাকতে হবে যাতে তারা অপরিকল্পিতভাবে ভবন নির্মাণ করে নির্বিচারে খোলা মাঠ ও জায়গা ধ্বংস না করে।

প্রত্যেক উপজেলায় থাকতে হবে মহাপরিকল্পনা

প্রধানমন্ত্রী গ্রামীণ অবকাঠামো প্রকল্পে মানসম্পন্ন কাজ নিশ্চিত করার জন্য নজরদারি জোরদারের নির্দেশ দেন।

তিনি বলেন, ‘আমরা উপজেলা পর্যায়ে মিনি-স্টেডিয়ামসহ অনেক প্রতিষ্ঠান ও অবকাঠামো নির্মাণ করছি। তাই প্রতিটি উপজেলায় (উন্নয়নের জন্য) মহাপরিকল্পনা থাকতে হবে।’

গ্রামীণ পানি সরবরাহ ও স্যানিটেশন সংশ্লিষ্ট একটি প্রকল্প নিয়ে আলোচনাকালে প্রধানমন্ত্রী প্রকল্পটি বাস্তবায়নের জন্য যদি সম্ভব হয় তাহলে ভূপৃষ্ঠের পানি ব্যবহারের বিষয়টি বিবেচনা করার নির্দেশ দেন।

প্রিপেইড গ্যাস মিটারের ব্যবহার সর্বজনীন করা

গ্যাস মিটার স্থাপনের একটি প্রকল্প সম্পর্কে আলাপকালে শেখ হাসিনা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে প্রিপেইড গ্যাস মিটারের ব্যবহার সর্বজনীন করার নির্দেশ দেন।

তিনি শিল্প ও বাণিজ্যিক কাজে গ্যাস বেশি খরচ হওয়ায় সেসব ক্ষেত্রে মিটার বসানোতে গুরুত্ব দেয়ার পাশাপাশি সব জায়গায় দ্রুত প্রিপেইড মিটার লাগানোর নির্দেশ দেন।

সূত্র : ইউএনবি