কুলাউড়ায় অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূকে শ্বাসরোধে হত্যা, শাশুড়িসহ ৪ জন আটক

প্রকাশিত: ১১:৩৫ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ৪, ২০২০

কুলাউড়ায় অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূকে শ্বাসরোধে হত্যা, শাশুড়িসহ ৪ জন আটক

মৌলভীবাজারের কুলাউড়া উপজেলার হাজীপুরে ৭ মাসের এক গর্ভবতী গৃহবধূকে শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যা মামলায় শাশুড়িসহ ৪ জনকে আটক করেছে থানা পুলিশ।

মামলার বিবরণে জানা যায়, কুলাউড়া উপজেলার হাজীপুর ইউনিয়নের দক্ষিণ পাবই (মোল্লাবাড়ি) নিবাসী আব্দুল মুকিদের স্ত্রী মাজেদা বেগম (২১) কে তার শশুরবাড়ির লোকজন শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যা করে গত ২ জুলাই সকালে মাজেদার বাবার বাড়ি কাদিপুর ইউনিয়নের গুপ্তগ্রাম নিবাসী তার মা কবিরুন নেছাকে স্ট্রোক করে তার মেয়ে মারা গেছে বলে জানায়।

খবর পেয়ে তার মাসহ অন্যরা তার মেয়ের শশুরবাড়িতে গিয়ে মাজেদার লাশ বসতঘরে দেখতে পায়। এনিয়ে মাজেদার মায়ের সন্দেহ হলে তিনি কুলাউড়া থানা পুলিশকে অবহিত করেন।

খবর পেয়ে কুলাউড়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সাদেক কাওসার দস্তগীর, কুলাউড়া থানার ওসি ইয়ারদৌস হাসান ও এস আই কানাই লাল চক্রবর্তী বৃহস্পতিবার (২ জুলাই) ঘটনাস্থলে পৌঁছে স্বামীর গৃহ থেকে মাজেদার লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মৌলভীবাজার মর্গে প্রেরণ করেন।

পুলিশ জানায়, লাশের সুরতহালে গলায় রশি জাতীয় জিনিস দিয়ে পেছানোর চিহ্ন পাওয়া যায়। মাজেদা ৭ মাসের গর্ভবতীও ছিলেন।

এই ঘটনায় শুক্রবার (৩ জুলাই) মাজেদার মা মোছা. কবিরুন নেছা বাদী হয়ে শাশুড়িসহ ৮ জনকে আসামী করে কুলাউড়া থানায় তার মেয়েকে খুন করার অপরাধে একটি মামলা দায়ের করেন।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এস আই কানাই লাল চক্রবর্তী দৈনিক অধিকারকে জানান, মামলার প্রেক্ষিতে ১নং আসামি মৃত মাজেদার শাশুড়ি মোছা.আছিয়া বেগম, ভাসুর আব্দুল জলিল ও মুক্তার আহমদ এবং দেবর জায়েদ আহমদসহ ৪ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

অন্যান্য আসামিদের গ্রেপ্তারের অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে তিনি জানান।


  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বমোট পাঠক


বাংলাভাষায় পুর্নাঙ্গ ভ্রমণের ওয়েবসাইট