ফেঞ্চুগঞ্জে বন্যা পনিস্থিতির অবনতি, ক্ষয়ক্ষতি ব্যাপক

প্রকাশিত: ১২:২৩ পূর্বাহ্ণ, জুন ২২, ২০১৮

ফেঞ্চুগঞ্জে বন্যা পনিস্থিতির অবনতি, ক্ষয়ক্ষতি ব্যাপক

গত কয়েকদিনের বৃস্টি ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলার কুশিয়ারা নদী ও হাকালুকি হাওরে পানি বৃদ্ধি পেয়ে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হয়েছে।

বৃহস্পতিবার কুশিয়ারা নদীর পানি বিপদসীমার ১০৭ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। বাসাবাড়ি, দোকানপাট, সরকারি-বেসরকারি অফিস, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পানি ঢুকেছে।

ফেঞ্চুগঞ্জ বাজারের ব্যবসায়ী কদর মিয়া জানান, ‘বন্যার কারণে উপজেলা সদরের বাজারে প্রায় ৩০০টি দোকানে পানি ঢুকেছে। এ অবস্থায় বেচা-কেনা বন্ধ রয়েছে। যেসব দোকানে একটু কম পানি, কেবল সেখানেই কিছুটা বেচা-কেনা হচ্ছে।’

সরেজমিনে দেখা যায়, ফেঞ্চুগঞ্জ মধ্যবাজারের রাস্তায় কোথাও হাঁটু সমান, কোথাও কোমর সমান পানি। বন্যার কারণে উপজেলার অর্ধশতাধিক গ্রামে প্রায় ২৫ হাজার মানুষ পানিবন্দি অবস্থায় বসবাস করছে।

ফেঞ্চুগঞ্জ সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. বদরুদ্দোজা জানান, ‘উপজেলা সদরের পার্শ্ববর্তী কুশিয়ারা নদীর পানি ব্যাপকভাবে বেড়ে গেছে। এতে উপজেলাজুড়ে বন্যা পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে। বাজারে পানি প্রবেশ করায় ব্যবসা-বাণিজ্য বন্ধ রয়েছে।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বমোট পাঠক


বাংলাভাষায় পুর্নাঙ্গ ভ্রমণের ওয়েবসাইট