ফখরুলের গাড়িবহরে হামলার প্রতিবাদে জাতিসংঘের সামনে বিক্ষোভ

প্রকাশিত: ১২:৩৯ পূর্বাহ্ণ, জুন ২৩, ২০১৭

ফখরুলের গাড়িবহরে হামলার প্রতিবাদে জাতিসংঘের সামনে বিক্ষোভ

নিউইয়র্ক : বিএনপি’র মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর এবং দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য ও সাবেক মন্ত্রী আমীর খসরু মাহমুদের উপর হামলার প্রতিবাদে জাতিসংঘ ভবনের সামনে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছেন যুক্তরাষ্ট্র বিএনপি’র নেতা-কর্মীরা। একই সঙ্গে জাতিসংঘ মহাসচিবের কাছে স্মারক লিপি প্রদান করা হয়।

স্থানীয় সময় বুধবার দুপুরে জাতিসংঘ সদর দপ্তরের সামনে এ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।

বিক্ষোভ কর্মসূচিতে অংশগ্রহণকারীরা দলীয় ব্যানারসহ ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সরকার বিরোধী বিভিন্ন শ্লোগান দেয় এবং প্লাকার্ড বহন করেন।

দলের শীর্ষ নেতাদের ওপর হামলা ও দলের সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে জাতিসংঘের সামনে আয়োজিত এ কর্মসূচিতে নেতৃত্ব দেন যুক্তরাষ্ট্র বিএনপির সাবেক যুগ্ম-আহ্বায়ক ও স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি মিজানুর রহমান মিল্টন ভূঁইয়া।

‘অ্যাকশন ফর ডেমোক্রেসী এন্ড ইউএসএ এবং যুক্তরাষ্ট্র বিএনপি’র যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত এই কর্মসূচি সঞ্চালনা করেন যুক্তরাষ্ট্র যুবদলের সহ-সভাপতি আতিকুল হক আহাদ।

সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- যুক্তরাষ্ট্র বিএনপি’র সাবেক সিনিয়র সহ-সভাপতি অধ্যাপক দেলোয়ার হোসেন, বিএনপি নেতা আব্বাস উদ্দিন দুলাল, আব্দুস সবুর, ড. দেওয়ান শামীম আহমদ, মুক্তিযোদ্ধা আবুল কালাম, যুক্তরাষ্ট্র যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক শামীম মাহমুদ মিজান, আলম মামুন সবুজ, আহসান উল্ল্যাহ মামুন, সালেহ আহেমদ রুমেল প্রমুখ।

সমাবেশে স্বেচ্ছাসেবক ও ছাত্রলের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতা-কর্মীরাও উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে মিজানুর রহমান ভূঁইয়া মিলন্টনের নেতৃত্বে জাতিসংঘের মহাসচিব বরাবরে একটি স্মারক লিপি পেশ করা হয়।

বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তারা দলীয় মহাসচিব মির্জা ফখরুল ও কেন্দ্রীয় নেতা আমির খসরুর ওপর হামলা আওয়ামী বাকশালীদের বর্বরোচিত ইতিহাসকেও ছাড়িয়ে গেছে বলে অভিযোগ করে বলেন, আওয়ামী লীগের শীর্ষ নেতার ইন্ধনেই দলের প্রচার সম্পাদক ড. হাসান মাহমুদের সমর্থকরাই এই হামলা চালিয়েছে।

তারা বলেন, এজন্য স্থানীয় আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা দায়ী। বক্তারা অবিলম্বে হামলাকারীদের চিহ্নিত করে তাদের গ্রেপ্তার এবং দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন।

বক্তরা বলেন, হামলা-মামলা, গুম-খুন, হত্যা করে আর বেশীদিন ক্ষমতায় টিকে থাকা যাবে না। সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে শেখ হাসিনা সরকারকে ক্ষমতাচুত্য করা হবে বলে বক্তারা উল্লেখ করেন। তারা দলীয় নেতা-কর্মীদের উপর দায়ের করা মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারেরও দাবী জানান।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বমোট পাঠক


বাংলাভাষায় পুর্নাঙ্গ ভ্রমণের ওয়েবসাইট