মরহুম মোহাম্মদ মকন মিয়া ছিলেন এই অঞ্চলের অভিভাবক : মিসবাহ্ উদ্দিন সিরাজ

প্রকাশিত: ৪:৫০ পূর্বাহ্ণ, জুন ২১, ২০১৭

মরহুম মোহাম্মদ মকন মিয়া ছিলেন এই অঞ্চলের অভিভাবক : মিসবাহ্ উদ্দিন সিরাজ

বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও পি.পি এডভোকেট মিসবাহ্ উদ্দিন সিরাজ বলেছেন, মরহুম মোহাম্মদ মকন মিয়া ছিলেন এ অঞ্চলের অভিভাবক। তিনি বলেন, মোহাম্মদ মকন মিয়া মোহাম্মদ মকন উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ প্রতিষ্ঠার কারণে হাজার হাজার শিক্ষার্থী লেখা-পড়ার সুযোগ পেয়েছে। তাই আমরা তার আত্মার শান্তি কামনা করছি। এছাড়া এ প্রতিষ্ঠানকে যারা তিল তিল করে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন তাদের দীর্ঘায়ুও কামনা করছি। তিনি বলেন এই প্রতিষ্ঠানকে পূর্ণাঙ্গ কলেজে রূপ দেওয়ার জন্য জন্য আমার প্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে। মিসবাহ্ উদ্দিন সিরাজ বলেন একজন রাজনীতিবিদ হিসাবে আমি এলাকার মানুষের জন্য আরো বেশি কাজ করতে চাই। এ জন্য আপনাদের সহযোগিতা প্রয়োজন। আগামী দিনে নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি হিসাবে এ সুযোগ পেলে কাজের ক্ষেত্র আরো বাড়বে। এডভোকেট মিসবাহ্ উদ্দিন সিরাজ গতকাল মঙ্গলবার দক্ষিণ সুরমা কামালগঞ্জস্থ মোহাম্মদ মকন উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের হল রুমে এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রতিষ্ঠাতা মোহাম্মদ মকন মিয়ার ২৪তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভা, দোয়া ও ইফতার মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।
এর আগে গতকাল মঙ্গলবার বিকেল সাড়ে ৫টায় প্রধান অতিথি মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ বিদ্যালয় ও কলেজের নতুন একাডেমিক ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন মোহাম্মদ মকন উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের অধ্যক্ষ মোহাম্মদ শহিদুর রব।
মোহাম্মদ মকন উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের গভর্ণিং বডি’র চেয়ারম্যান আফছর উদ্দিনের সভাপতিত্বে ও বিদ্যালয় ও কলেজের সহকারী শিক্ষক সফয়ান শাহিরের পরিচালনায় এ সময় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, সিলেট অঞ্চলের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের বিদ্যালয় পরিদর্শক মো: জাহাহীর আলম, ১নং মোল্লারগাঁও ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব শেখ মো: মকন মিয়া, দক্ষিণ সুরমা উপজেলার সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান আলহাজ্ব গোলাম হোসেন, মোহাম্মদ মকন উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের গভর্ণিং বডির সদস্য মো: মকবুল হোসেন, গভর্ণিং বডির সদস্য মো: শামছুল হক ফটিক ও গভর্ণিং বডির সদস্য মো: মকব্বির আলী।
সভাপতির বক্তব্যে মোহাম্মদ মকন উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের গভর্ণিং বডির চেয়ারম্যান আফছর উদ্দিন বলেন, আজ আমরা এমন এক ব্যক্তির জন্য ইফতার ও দোয়ার আয়োজন করেছি যিনি আজীবন এ অঞ্চলের শিক্ষার উন্নয়নে ব্যাপক কাজ করে গেছেন। তিনি বলেন মকন মিয়ার অবদান ও কর্ম আগামী প্রজন্মের কাছে তুলে ধরতে হবে। যাতে মানুষ তার কর্ম দেখে নিজেরাও ভালো কাজে সম্পৃক্ত হতে পারে। আফছর উদ্দিন বলেন, বিশিষ্ট রাজনীতিবিদ এ অঞ্চলের মাটি ও মানুষের নেতা মিসবাহ উদ্দিন সিরাজের একান্ত প্রচেষ্টায় নতুন একাডেমিক ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপিত হয়েছে। আমরা আশা করি মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ আগামীতে জনপ্রতিনিধি হলে শুধু এ অঞ্চলের শিক্ষা নয় যোগাযোগ সহ সার্বিক ক্ষেত্রে ব্যাপক উন্নয়ন সাধিত হবে।
অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, দৈনিক কাজিরবাজার পত্রিকার নির্বাহী সম্পাদক সৈয়দ সুজাত আলী, রাশিদ আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের হেড মাষ্টার রমজান আলী, বরইকান্দি ইউনিয়নের আওয়ামীলীগের সভাপতি গৌছ মিয়া, মোহাম্মদ মকন উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের সহকারী শিক্ষক আসাদুজ্জামান, সহকারী শিক্ষক নজরুল ইসলাম, আব্দুল মালিক রাজু, জাহাঙ্গীর আলম, রুমা তালুকদার, রেহানা পারভীন মুক্তা, নাজমা বেগম, দক্ষিণ সুরমা থানার মানবাধিকার সংস্থার সেক্রেটারী মো: শফিউল আলম, সহ-সেক্রেটারী তানবীর হোসেন, এলাকার বিশিষ্ট মুরব্বী লিয়াকত আলী, মো: কাদির মিয়া, মো: ইলিয়াছ আলী, মো: রানা আহমদ, মো: মামুন আহমদ, মো: মতিন মিয়া, মো: মাহবুব মিয়া, হাজী মির্জা মকবুল হোসেন, মোগলাবাজার ইউনিয়নের চেয়ারম্যান, মো: শামীম আহমদ, জাকির আহমদ, আফজল হোসেন, মো: অনিক খান ও মো: নজরুল ইসলাম প্রমুখ। অনুষ্ঠান শেষে দোয়া পরিচালনা করেন, সিলেট অঞ্চলের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের বিদ্যালয় পরিদর্শক মো: জাহাহীর আলম।
অনুষ্ঠানের শুরুতে কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন মোহাম্মদ মকন উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের ১০ম শ্রেণীর ছাত্র মহিদুর রহমান ইমন ও গজল পরিবেশন করেন স্কুলের ১০ম শ্রেণীর ছাত্র তামিম আহমদ। প্রেস-বিজ্ঞপ্তি।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বমোট পাঠক


বাংলাভাষায় পুর্নাঙ্গ ভ্রমণের ওয়েবসাইট