ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে মধ্যপন্থী এমানুয়েল ম্যাক্রন বিজয়ী

প্রকাশিত: ১:৩২ পূর্বাহ্ণ, মে ৮, ২০১৭

ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে মধ্যপন্থী এমানুয়েল ম্যাক্রন বিজয়ী

প্যারিস : ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে মধ্যপন্থী প্রার্থী এমানুয়েল ম্যাক্রন ৬৫ দশমিক ১ শতাংশ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন বলে প্রাথমিক ফলাফলে জানা যাচ্ছে।

তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী উগ্র ডানপন্থী প্রার্থী মারিন ল্য পেন ৩৪ দশমিক ৯ শতাংশ ভোট পেয়ে পরাজিত হয়েছেন।

এই ফলাফল অনুযায়ী, ৩৯-বছর বয়স্ক ম্যাক্রনই ফ্রান্সের কনিষ্ঠতম প্রেসিডেন্ট। একই সাথে তিনিই হচ্ছেন প্রথম প্রেসিডেন্ট যিনি দেশের দুটি প্রধান রাজনৈতিক দলের বাইরে থেকে রাষ্ট্র ক্ষমতায় আসছেন।

কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে রবিবার তুমুল প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ এই নির্বাচনের দ্বিতীয় পর্যায়ের ভোট-গ্রহণ সম্পন্ন হয়।

সরকারিভাবে এই ফল ঘোষণা হবে আগামী ১০ মে। ফরাসি গণপরিষদের প্রেসিডেন্ট লরাঁ ফ্যাবিয়াস সেদিন ফল ঘোষণা করবেন। আগামী ১১ ও ১৮ জুন দেশটিতে সংসদীয় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

এর আগে রবিবার হ্যাকিং সংক্রান্ত উত্তেজনার মধ্যেই ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের চূড়ান্ত পর্বের ভোটগ্রহণ শুরু হয়।

ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, বিকাল ৫টা পর্যন্ত ভোটের হার ৬৫ দশমিক ৩ শতাংশ। যা ২০১২ সালের নির্বাচনের চেয়ে কম। ওই নির্বাচনে ভোটার উপস্থিতির হার ছিল ৭২ শতাংশ। এর আগে ২০০৭ সালের নির্বাচনে এ হার ছিল ৭৫ দশমিক ১ শতাংশ। এবারের নির্বাচনের ভোটার উপস্থিতির হার ১৯৮১ সালের পর থেকে সবচেয়ে কম।

ফ্রান্সের নির্বাচন ব্যবস্থা অনুযায়ী, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রথম পর্বে যদি কোনো প্রার্থী ৫০ শতাংশ ভোট অর্জন করতে ব্যর্থ হন, তাহলে দ্বিতীয় ধাপের নির্বাচনে অংশ নেন শীর্ষ দুই প্রার্থী।

গত ২৩ এপ্রিল অনুষ্ঠিত প্রথম ধাপের নির্বাচনে ম্যাক্রন ২৩.৭৫ শতাংশ ভোট এবং লা পেন পান ২১.৫৩ শতাংশ। তারাই দ্বিতীয় ধাপে লড়াইয়ের জন্য মনোনীত হয়ে রবিবারের দ্বিতীয় দফায় অংশ নেন। এতে বিজয়ী হলেন মধ্যপন্থী হিসেবে পরিচিত ম্যাক্রন।

দ্যা গার্ডিয়ান অবলম্বনে

  •