কিসের চুক্তি, আগে তিস্তা পরে অন্যকিছু : গয়েশ্বর

প্রকাশিত: ৫:২৫ অপরাহ্ণ, মার্চ ১৭, ২০১৭

কিসের চুক্তি, আগে তিস্তা পরে অন্যকিছু : গয়েশ্বর

বর্তমান সংসদ যদিও আড্ডা খানা হয়ে থাকে তবুও ভারতের সঙ্গে সম্ভাব্য চুক্তির বিষয়গুলো এখানে তুলে ধরা উচিৎ বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়।

শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবে এক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

বিএনপির সাবেক মহাসচিব মরহুম খোন্দকার দেলোয়ার হোসেনের ৬ষ্ঠ মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে এই স্মরণ সভার আয়োজন করে স্বাধীনতা ফোরাম।

গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, বর্তমান সরকার যদিও অবৈধ কিন্তু সংশ্লিষ্টরা তো সেখান থেকে বেতন ভাতা নিচ্ছেন।তাই সংসদে ভারতের সঙ্গে সম্ভাব্য চুক্তির বিষয়গুলো তুলে ধরা উচিৎ। কেননা দেশের জনগণের এই চুক্তিগুলো জানার অধিকার আছে।

প্রধানমন্ত্রী ভারত সফর প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর ভারত সফরকালে নাকি সেদেশের সঙ্গে চুক্তি হবে। কিন্তু কিসের চুক্তি? সবার আগে তিস্তার পানিবন্টন চুক্তি হবে। তারপরে অন্যকিছু। এটা ভারতকে স্পষ্টভাবে বাংলাদেশ সরকারকে বলতে হবে।

খোন্দকার দেলোয়ার হোসেনকে ভালো সংগঠক হিসাবে মন্তব্য করে বিএনপির এই সিনিয়র নেতা বলেন, বর্তমান রাজনৈতিক প্রক্ষাপটে তার মতো ভালো সংগঠকের বড়ই অভাব রয়েছে। আমরা আজো ওয়ান ইলেভেনের নির্যাতন থেকে রেহাই পায়নি। তিনি সেসময় বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপিকে বলিষ্ঠ নেতৃত্বে শক্তভাবে পরিচালনা করতেন। তার প্রয়োজনীয়তা আজো তীব্র থেকে তীব্রতর বলেও উল্লেখ করেছেন তিনি।

এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন, আয়োজক সংগঠনের সভাপতি আবু নাসের মুহাম্মদ রহমাতুল্লার, বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, আমিনুল ইসলাম প্রমুখ।

  •  

সর্বমোট পাঠক


বাংলাভাষায় পুর্নাঙ্গ ভ্রমণের ওয়েবসাইট