ভুয়া মার্কিন দূতাবাসে বৈধ ভিসা!

প্রকাশিত: ১২:৩৩ পূর্বাহ্ণ, ডিসেম্বর ৬, ২০১৬

আক্রা : ঢেউ করা লোহার ছাদ বিশিষ্ট দোতলা ভবনের রংটা দেখতে অনেকটা গোলাপী। বাইরে উড়ছে যুক্তরাষ্ট্রের পতাকা। আর ভেতরে টানানো প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার ছবি। এমনই সুন্দর একটি ভবন খোদ একটি দেশের রাজধানীতে অবস্থিত।

গত প্রায় এক দশক ধরে ঘানার রাজধানী আক্রায় এভাবে সবাইকে ধোঁকা দিয়ে ভিসা ইস্যু করে আসছিল এই ভুয়া মার্কিন দূতাবাস। অনেকটা যুক্তরাষ্ট্রের দূতাবাসের আদলে যাবতীয় আয়োজন।

বিশ্বের পরাক্রমশালী রাষ্ট্রের নামে আস্ত একটা দূতাবাস চালিয়ে আসছিল একটা দুর্বৃত্ত চক্র। আর অবৈধভাবে পাওয়া বৈধ ভিসা ইস্যু করা হতো এখান থেকে। অর্থের বিনিময়ে সরবরাহ করতো জাল পরিচয়পত্র।

শুক্রবার যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র দফতর থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়, ভুয়া মার্কিন দূতাবাসটি এই গ্রীষ্মে বন্ধ করে দেয়া হয়।

এতে বলা হয়, ‘এটি যুক্তরাষ্ট্রের সরকার কর্তৃক পরিচালিত ছিল না। ঘানা এবং তুরস্কের একটি সংঘবব্ধ দুর্বৃত্ত চক্রের কিছু সদস্য এবং অভিবাসন ও ফৌজদারি আইনের একজন ঘানার অ্যাটর্নি জেনারেল এটি চালাতো।’

ওই তুর্কি নাগরিকরা ইংরেজি এবং ডাচ বলতে পারতো। তারাই নিজেদের কনস্যুলার এবং স্টাফ পরিচয় দিয়ে এর কর্মকাণ্ড পরিচালনা করতো।

নেদারল্যান্ডসেরও একটি ভুয়া দূতাবাসের খোঁজ মিলেছে। তবে রোববার নাগাদ দেশটির কোনো কর্মকর্তার সঙ্গে এ বিষয়ে কথা বলা সম্ভব হয়নি বলে জানা যায়।

দুর্বৃত্ত চক্রটি প্রতারণার মাধ্যমে পাওয়া বৈধ ভিসা ইস্যু করতো। এছাড়া তারা প্রত্যেকটি ছয় হাজার ডলারের বিনিময়ে জন্মনিবন্ধনসহ ভুয়া পরিচয়পত্র ইস্যু করতো।

ওই ভবনে অভিযানে কয়েকজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এসময় ভারত, দক্ষিণ আফ্রিকা ও শেনজেন জোনের বৈধ ও জাল ভিসা এবং ১০টি দেশের ১৫০টি পাসপোর্ট উদ্ধার করা হয়।

সূত্র : আলজাজিরা

  •