যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে বিক্ষোভ, ভাংচুর

প্রকাশিত: ১০:৪৪ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৯, ২০১৬

ওয়াশিংটন : মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের চূড়ান্ত ফলঘোষণার পরপরই বিক্ষোভ মিছিল ও ভাংচুর শুরু হয় বিভিন্ন এলাকায়। ডোনাল্ড ট্রাম্প মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট হচ্ছেন, এই সিদ্ধান্ত মানতে রাজি নন মার্কিন নাগরিকদের অনেকেই।

চূড়ান্ত ফলঘোষণার কিছুক্ষণের মধ্যেই, ক্যালিফোর্নিয়ার রাস্তায় নেমে আসেন বিক্ষোভকারীরা। স্লোগান ওঠে, ‘‌ট্রাম্পকে আমরা প্রেসিডেন্ট হিসাবে চাই না।’‌

পোর্টল্যান্ডের পরিস্থিতি আরো খারাপ। সেখানে যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় পতাকায় আগুন লাগানোর অভিযোগ উঠেছে হিলারির সমর্থকদের বিরুদ্ধে। রাস্তার সিসিটিভি ফুটেজেও উত্তেজিত জনতার ভাংচুর এবং পতাকা পোড়ানোর দৃশ্য ধরা পড়েছে।

এরই মধ্যে বার্কলেতে একটি ট্রাম্পবিরোধী মিছিলের কারণে প্রচুর যানজটের সৃষ্টি হয়। সেখানে সড়ক দুর্ঘটনায় এক প্রতিবাদী যুবক গুরুতর আহতও হয়েছে।

বাদ যায়নি সান দিয়েগো, সান ফ্রানসিস্কোর মতো শহরগুলোও। পরিস্থিতি মোকাবিলায় পথে নামতে হয়েছে ‌পুলিশকে।

বাদ যায়নি হোয়াইট হাউসের চত্বরও। বিক্ষোভে সবচেয়ে সক্রিয় ছিলেন ছাত্রছাত্রীরা। হোয়াইট হাউসের সামনে তাদের সরাতে একেবারে হিমসিম খেতে হয়েছে তাদের।

বিক্ষোভ দেখাতে এসেছিলেন ওরেগন বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী মার্গারেটা গিবসন। তিনি বলেছেন, ‘‌ট্রাম্পের মতো একজন বিকৃত মানসিকতার ব্যক্তি হোয়াইট হাউসে ক্ষমতায় আসছেন। বিষয়টায় আমি পুরোপুরি আতঙ্কিত। এরকম প্রেসিডেন্ট আমরা চাই না।’‌

সূত্র : ডেইলিস্টার

  •