দক্ষিণ সুরমায় ডাকাতির ঘটনায় ২ ডাকাত আটক

প্রকাশিত: ৭:৪৩ পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ১৬, ২০১৬

দক্ষিণ সুরমা উপজেলার মোল্লারগাঁও এ ডাকাতির ঘটনায় ২ ডাকাতকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শুক্রবার (১৪ অক্টোবর) গভীর রাতে টুকেরবাজার ও শাহজালাল মাজার গেইট এলাকা থেকে তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হচ্ছে- জালালাবাদ থানার কান্দিগাঁও এলাকার মৃত আঞ্জব আলীর পুত্র মো. ওয়ারিছ (৪৫) ও সুনামগঞ্জ জেলার জগন্নাথপুর থানার নোয়াগাঁও গ্রামের মৃত ছালিম উদ্দিনের পুত্র বর্তমানে টুকেরবাজার এলাকার বাসিন্দা মো. মঞ্জুর আলী ওরফে সঞ্জু ওরফে সঞ্জব আলী (৩০)।

শনিবার (১৫ অক্টোবর) পুলিশ গ্রেফতারকৃতদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

দক্ষিণ সুরমা থানার সহকারী পুলিশ কমিশনার (এসি) মো. মোস্তাফিজুর রহমান জানান- শুক্রবার রাত দেড়টার দিকে তার নেতৃত্বে ও এএসআই হান্নান আল মামুন এর সহযোগিতায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সিলেট শাহজালাল (রহ.) মাজার গেইটে অভিযান চালিয়ে মো. ওয়ারিছকে প্রথমে গ্রেফতার করা হয়। পরে পুলিশের একই দল ওইদিন রাত ৩টার দিকে টুকেরবাজার এলাকায় অভিযান চালিয়ে সঞ্জব আলীকে গ্রেফতার করে। এসময় সঞ্জব আলীর কাছ থেকে লুণ্ঠিত একটি নোকিয়া মোবাইলফোন উদ্ধার করা হয়। উদ্ধার হওয়া মোবাইল ফোনটি মামলার আলামত হিসেবে জব্ধ করেছে পুলিশ।

এসি মোস্তাফিজুর রহমান আরো জানান- গ্রেফতারকৃত ওয়ারিছ ও সঞ্জব আলীকে মামলার বাদি কর্তৃক সনাক্ত করা হয়েছে। ধৃত আসামিদের জিজ্ঞাসাবাদে তারা ডাকাতির ঘটনায় সরাসরি অংশগ্রহণ করে মর্মে ডাকাতির ঘটনা বর্ণনা করে। আসামি সঞ্জব আলীকে ডাকাত সর্দার নগদ ১ হাজার টাকা ও তার নিকট হতে উদ্ধারকৃত মোবাইলটি ডাকাতির ভাগ হিসেবে দেয় বলে সে স্বীকার করেছে।

উল্লেখ্য, গত ১০ অক্টোবর শনিবার মধ্যরাত ৩ টার দিকে ডাকাতদলরা দক্ষিণ সুরমার মোল্লারগাঁও ইউনিয়নের মৃত তাহির উদ্দীনের পুত্র শাহেদ হোসেনের বাড়িতে ডাকাতির ঘটনা ঘটে। এসময় ডাকাতরা নগদ দেড় লাখ টাকা, বাংলাদেশি ৭০ হাজার টাকা মূল্যমানের পাউন্ড ও ডলার, ২০ ভরি স্বর্ণ, আটটি মোবাইল ফোনসেট, একটি ল্যাপটপসহ ১৫ লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে যায়।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বমোট পাঠক


বাংলাভাষায় পুর্নাঙ্গ ভ্রমণের ওয়েবসাইট