দক্ষিণ সুরমায় উপজেলা শিক্ষক সমিতির জঙ্গি বিরোধী মানববন্ধন

প্রকাশিত: ৪:৪৯ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২২, ২০১৬

বাংলাদেশ শিক্ষক সমিতি দক্ষিণ সুরমা উপজেলা শাখার উদ্যোগে জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাস বিরোধী মানববন্ধন বৃহস্পতিবার দুপুরে আব্দুস সামাদ চত্বরে অনুষ্ঠিত হয়। শেষে প্রগতি উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে সমাবেশে মিলিত হয়।
শিক্ষক সমিতির সভাপতি হাজী রাশিদ আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ রমজান আলীর সভাপতিত্বে ও সচিব গোলাম মোস্তফার পরিচালনায় মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য রাখেন সমিতির সিনিয়র সহ-সভাপতি সিরাজ উদ্দিন আহমদ একাডেমীর প্রধান শিক্ষক বেলাল আহমদ, সহ-সভাপতি জাফরাবাদ দ্বি-পাক্ষিক উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুর মুক্তাদির, মোহাম্মদ মকন উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের অধ্যক্ষ মোঃ শহিদুর রব, অর্থ সচিব বলদী আদর্শ বহুমুখী প্রধান শিক্ষক গোলাম মোস্তফা কামাল, সহ-সভাপতি সিলাম পিএল বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের দিলীপ লাল রায়, সহ-সভাপতি জালালাবাদ দ্বি-পাক্ষিক উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ তজ¤মূল ইসলাম, অতিরিক্ত সচিব মোহাম্মদ আব্দুল আহাদ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ আব্দুস সালাম, যুগ্ম সচিব বিবিদলই বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সাইফুল ইসলাম রানা, সিরাজ উদ্দিন আহমদ একাডেমীর সহকারী প্রধান শিক্ষক মোঃ আব্দুল মকব্বির, আব্দুল হাই।

অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন রাখালগঞ্জ কেসি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক গৌরাপদ দত্ত, নবারুণ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আবু ইউসুফ, সাংগঠনিক সচিব মোহাম্মদ মকন উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের সহকারী প্রধান শিক্ষক আব্দুল মালিক রাজু, শফির আহমদ কামাল, গণসংযোগ সচিব শাহজালাল উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক আশিষ কুমার পাল, প্রগতি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সন্তোষ কুমার দাস, জাফরাবাদ উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক রজিশ চন্দ্র তালুকদার, রুস্তমপুর আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মাহমুদ হোসেন, সিলাম পিএল বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক আক্তার হোসেন, জালালাবাদ দ্বি-পাক্ষিক উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক এ.কে. আব্দুল আহাদ, জয়নুল আবেদীন, আব্দুল মুয়িদ চৌধুরী, আমিনা বেগম, আল মেহেদী তালুকদার, মাহবুবুল আলম, মৃদুল চক্রবর্ত্তী, রতœা রাণী দাস, স্বপন চন্দ্র দে, জ্যোতির্ময় পাল প্রমুখ।

সভায় বক্তারা বলেন, “সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ নিপাত যাক, দেশ বাঁচাও জঙ্গি ঠেকাও”। এই শ্লোগানকে সামনে রেখে সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ প্রতিরোধে শিক্ষকদের পাশাপাশি সমাজের সব শ্রেণী মানুষের এগিয়ে আসতে হবে। শিক্ষকরা শিক্ষার্থীদের লেখাপড়ার পাশাপাশি তাদের নৈতিক শিক্ষায় শিক্ষিত হতে হবে। অভিভাবকরা সচেতন হলে অপরাধ কর্মকান্ডে তাদের নিজ সন্তানরা জড়িয়ে পড়ে না সমাজের অনাকাংখিত ঘটনায়। তাই আমাদের সজাগ দৃষ্টি রাখতে হবে শিক্ষার্থীদের প্রতি।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বমোট পাঠক


বাংলাভাষায় পুর্নাঙ্গ ভ্রমণের ওয়েবসাইট