রাজনগরে প্রেম সংক্রান্ত ঘটনায় নির্মাণ শ্রমিকের আত্মহত্যা

প্রকাশিত: ২:৪৫ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৯, ২০১৬

আব্দুল হাকিম রাজ ।। মৌলভীবাজারের রাজনগরে প্রেমঘটিত অভিমানে নির্মাণ শ্রমিক শাহাজাহান মিয়া (২৫) গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছে।সে উপজেলার ফতেপুর ইউনিয়নের মোকামবাজার গ্রামের মৃত বইতুল­া মিয়ার পুত্র।তার পারিবারিক সুত্রে জানা যায়,রবিবার (১৮ আগষ্ট) বিকাল ৫ টায় শাহজাহান তার ছোট বোনকে বলে সে কয়েকদিন ধরে লাগাতার অনিদ্রায় ভুগছে।তার এখন ঘুমের দরকার সেজন্য তাকে কেউ ডাকাডাকি না করার জন্য বলে রুমের দরজা বন্ধ করে দেয়। এশার আজানের সময় শাহাজাহানের মা রান্না-বান্না শেষ করে খাবারের জন্য ছেলেকে ডাকতে গেলে ভিতর থেকে কোন সাড়া-শব্দ না পেয়ে ঘরের দরজা ভেঙ্গে প্রবেশ করে তার ঝুলন্ত লাশ পাওয়া যায়।

পারিবারিক সূত্রমতে পরিবারের কারো সাথে কোন ব্যাপার নিয়ে শাহাজাহানের কোন প্রকার ঝগড়া-বিবাদ ছিলনা। তার চাচা সফিক মিয়া জানান, বেশ কিছুদিন ধরে শাহাজাহান মানসিক রোগে ভুগছিল। তাই তারা বিভিন্ন ডাক্তার-কবিরাজের কাছে গিয়ে চিকিৎসা করিয়েছেন।রবিবার সকালে ও শাহাজাহানের মা একজন কবিরাজ থেকে ছেলের রোগ মুক্তির জন্য ডাব পড়া নিয়ে আসলে ছেলে এখনো ডাবের পানি পান করেনাই।

একটি সুত্র জানায়,শাহাজাহান প্রবাস জীবন বাহরাইন থাকাবস্থায় তার খালাত বোনের সাথে ফোন যোগাযোগে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে।এবং খালাত বোনকে বিয়ে করার উদ্যেশ্যে বাহরাইন থেকে দেশে ফিরে আসলে মেয়ে পক্ষ শাহাজাহানের কাছে তাদের মেয়ে বিয়ে দিতে অনীহা দেখায়। এ নিয়ে বেশ কয়েকদিন ধরে সে মানসিক ভাবে ভেঙ্গে পড়েছিল।

ফতেপুর ইউপি চেয়ারম্যান নকুল চন্দ্র দাশ আন্তহত্যার ঘটনা নিশ্চিত করে জানান বিষয়টি পুলিশকে অবগত করা হয়েছে।এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত রাত ১০ টায় সরেজমিন পুলিশ আসার খবর পাওয়া যায়নি।সাবেক মেম্বার মঈনুদ্দিন জানান,পুলিশ বলছে আত্মহত্যাকারীর পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় লিখিত ভাবে জানানোর পর পুলিশ ঘটনাস্থলে আসবে।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বমোট পাঠক


বাংলাভাষায় পুর্নাঙ্গ ভ্রমণের ওয়েবসাইট