শায়েস্তাগঞ্জ পৌরসভা এলাকায় জনতার হাতে প্রেমিক জুটি আটক, অতঃপর বিয়ে

প্রকাশিত: ২:৫৭ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ১৯, ২০১৬

হবিগঞ্জ সদর উপজেলার শায়েস্তাগঞ্জ পৌরসভার দাউদনগর এলাকা থেকে জনতার হাতে প্রেমিকজুটি আটকের পর বিয়ে পড়িয়ে দেওয়া হয়েছে।
শায়েস্তাগঞ্জ পৌরসভার ২নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর এমএ জলিল ও গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের উপস্থিতিতে উভয় পক্ষের লোকজনের সম্মতিতে রাতে কাজী নূর উদ্দিনের ঘটকালীতে আড়াই লাখ টাকা দেনমোহরে প্রেমিকজুটির বিয়ে সম্পন্ন হয়েছে।
স্থানীয় সূত্র জানায়- জেলার মাধবপুর উপজেলার রতনপুর গ্রামের নানু মিয়ার ছেলে মহসিন মিয়া (২৬) হবিগঞ্জ সদর উপজেলার দরিয়াপুর গ্রামের খোর্শেদ আলীর কন্যা শাবানা আক্তার (১৯) মিলে দাউদনগর এলাকায় ঘুরতে আসেন। তাদের ঘুরাফেরা দেখে স্থানীয়দের সন্দেহ হয়। এক পর্যায়ে স্থানীয় জনতা তাদেরকে আটক করে নওশাদ কমিউনিটি সেন্টারে নিয়ে আসেন।
এ খবর পেয়ে ২নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর এমএ জলিল, সমাজসেবক হামিদুল হক বুলবুল, রাজু বিশ্বাস, কাজী কামাল, সাজু বিশ্বাস, শামসুদ্দিনসহ গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত হয়ে প্রেমিকজুটির অভিভাবকদেরকে খবর দেন। এসময় শাবানা সবাইকে বলে মহসিন তার প্রেমিক। মহসিন যদিও প্রথমদিকে শাবানাকে প্রেমিকা হিসেবে স্বীকার না করে বোন বলেছিল।
পরে অভিভাবকরা এসে সম্মতি দিলে সবার উপস্থিতিতে বিয়ে পড়ানো হয়। এসময় অভিভাবকদের পক্ষ থেকে সবাইকে মিষ্টিমুখ করানো হয়েছে। পরে নববধূকে নিয়ে বর বাড়িতে ফিরে যান।

  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

সর্বমোট পাঠক


বাংলাভাষায় পুর্নাঙ্গ ভ্রমণের ওয়েবসাইট