বড় ব্যবধানে বেলজিয়ামের জয়

খেলার খবর

মস্কো : বিশ্বকাপে বড় ব্যবধানে জয় পেয়েছে বেলজিয়াম। তারা ৫-২ গোলের ব্যবধানে তিউনিশিয়াকে হারিয়ে এই জয় তুলে নেয়। এই জয়ের ফলে রাশিয়া বিশ্বকাপে ‘জি’ গ্রুপ থেকে নকআউট পর্বে খেলা নিশ্চিত করেছে বেলজিয়াম।

রাশিয়া বিশ্বকাপে আজ ‘এফ’ গ্রুপের ম্যাচে তিউনিসিয়ার বিপক্ষে মাঠে নেমেছে বেলজিয়াম। মস্কোর স্পার্তাকে ম্যাচটি শুরু হয়েছে বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা ছয়টায়। খেলা শুরু হতে না হতে এগিয়ে যায় বেলজিয়াম। ম্যাচের ষষ্ঠ মিনিটে পেনাল্টি থেকে গোলটি করে বেলজিয়ামকে ১-০ গোলে এগিয়ে দিলেন দলটির অধিনায়ক এডেন হ্যাজার্ড।

মস্কোতে অনুষ্ঠিত ম্যাচের সপ্তম মিনিটে বেলজিয়াম এগিয়ে যায়। পেনাল্টি থেকে লক্ষ্যভেদ করেন এডেন হ্যাজার্ড। বক্সের মধ্যে তাঁকে ফউল করেন তিউনিশিয়ার ডিফেন্ডার স্যাম বেন ইউসেফ। রেফারি পেনাল্টির নির্দেশ দেন। আর পেনাল্টি থেকে গোল করতে মোটেও ভুল করেননি বেলজিয়ান অধিনায়ক।

১৬ মিনেটেই ব্যবধান দ্বিগুণ করে ফেলে বেলজিয়াম। মাঝমাঠ থেকে পাওয়া একটি বল নিয়ে বক্সে ঢুকে রামেলু লুকাকু চমৎকার প্লেসিং শটে জালে জড়ান বল (২-০)।

তবে দুই মিনিটের ব্যবধানে তিউনিশিয়া একটি গোলে করে ব্যবধান কিছুটা কমায়। ১৮ মিনিটে ফরোয়ার্ড ওয়াহাবি খাজরির চমৎকার ফ্রি-কিক থেকে ডিফেন্ডার ডিলান ব্রন মাথা ছোঁয়ালেই বল ঠিকানা খুঁজে পায় জালে।

প্রথমার্ধের ইনজুরি সময়ে লুকাকু দলের পক্ষে তৃতীয় এবং ব্যক্তিগত দ্বিতীয় গোল করেন। টমাস মুয়েনিয়ার বড়ানো বল ধরে বক্সে ঢুকে গোলরক্ষকের পাশ দিয়ে দারুণভাবে জালে পাঠান বল।

আসরে এটি লুকাকুর চতুর্থ গোল। এর আগে প্রথম ম্যাচে পানামার বিপক্ষে জোড়া গোল করেছিলেন ইংলিশ লিগে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে খেলা এই স্ট্রাইকার।

অবশ্য এর আগে ৩৩ মিনিটে তিউনিশিয়া আরেকটি গোল পেতে পারতো। বক্সের বাইরে থেকে ওয়াহাবি খাজরির চমৎকার শট বেলজিয়াম গোলক্ষাকের দারুণ সেভ, তা না হলে বিপদ হতে পারতো।

এর আগে পানামাকে ৩-০ গোলে হারিয়েছিল বেলজিয়াম। আর ইংল্যান্ডের কাছে ২-১ গোলে হেরেছিল তিউনিসিয়া। আজ যদি বেলজিয়াম জয় পায় তাহলে তারা দ্বিতীয় রাউন্ডের পথে এগিয়ে যাবে। অন্যদিকে, টুর্নামেন্টে টিকে থাকতে হলে তিউনিসিয়ার জন্য জয় পাওয়াটা গুরুত্বপূর্ণ।

গত ১৪ জুন শুরু হয়েছে রাশিয়া বিশ্বকাপ। টুর্নামেন্টে ইতোমধ্যে দ্বিতীয় রাউন্ড নিশ্চিত করেছে রাশিয়া, উরুগুয়ে, ফ্রান্স ও ক্রোয়েশিয়া। আর ইতোমধ্যে বিদায় নিশ্চিত হয়ে গিয়েছে মরক্কো, সৌদি আরব, মিসর, পেরু ও কোস্টারিকার। আগামী ২৮ জুন শেষ হবে গ্রুপ পর্বের খেলা। ৩০ জুন শুরু হবে নকআউট পর্ব। আর ফাইনাল ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে আগামী ১৫ জুলাই।

Leave a Reply