পাকিস্তানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্র্রী গুলিবিদ্ধ, হামলাকারী আটক

আন্তর্জাতিক

লাহোর : পাকিস্তানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আহসান ইকবালকে গুলি করার পর তিনি আহত হয়েছেন। হামলাকারীকে ঘটনাস্থল থেকেই ধরা হয়েছে। রবিবার পাঞ্জাবের নারওয়ালে প্রাদেশিক পরিষদের বৈঠকে যোগ দিতে যাওয়ার সময় তাকে গুলি করা হয় বলে জানিয়েছে পুলিশ। তাকে একটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। তার অবস্থা আশংকামুক্ত বলে বর্ণনা করা হচ্ছে। -খবর বিবিসি

পাকিস্তানের ক্ষমতাসীন দল পিএমএল-এন এ ঘটনাকে হত্যাচেষ্টা বলে উল্লেখ করেছে।

ইসলামাবাদ থেকে বিবিসির সেকান্দার কেরমানি জানান, লাহোর থেকে প্রায় ৭০ মাইল দূরবর্তী একটি শহর নরোওয়ালে একটি সমাবেশ থেকে যাওয়ার সময় তাকে গুলি করা হয়।

তাকে সাথে সাথে নিকটবর্তী হাসপাতালে নেয়া হয়।

নারওয়াল জেলার পুলিশ প্রধান ইমরান খিসার বরাত দিয়ে বিবিসি জানিয়েছে, ক্ষমতাসীন দলের অন্যতম নেতা ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আহসান ইকবাল প্রাদেশিক পরিষদের সভায় যোগ দিতে তার গাড়ি থেকে নামার সঙ্গে সঙ্গে এক যুবক তাকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে।

তবে ডন বলছে, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এক পথসভায় যোগ দিয়েছিলেন। সেখানেই তাকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়া হয়। তার কাঁধে গুলি লেগেছে। তাকে প্রথমে জেলা সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। পরে সেখান থেকে হেলিকপ্টারে করে লাহোরে নেওয়া হয়। সন্দেহভাজন হামলাকারীকে আটক করা হয়েছে। পুলিশ কর্মকর্তা ইমরান খিসার বরাত দিয়ে জানানো হয়েছে, হামলাকারীর বয়স ২০ থেকে ২২ বছর। ২০ গজ দূর থেকে পিস্তল দিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে গুলি করে ওই যুবক।

পিএমএল-এনের নেতা ও পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী শাহবাজ শরিফ এ হামলাকে জঘন্য নৃশংসতা বলে উল্লেখ করেছেন। হত্যার উদ্দেশ্যেই এ হামলা করা হয়েছে।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী শহীদ খাকান আব্বাসী এ হামলার নিন্দা জানিয়ে বলেছেন, এর সঙ্গে যারাই জড়িত থাকুক, তাদের বিচারের আওতায় আনা হবে।

তবে স্থানীয় একটি টিভি চ্যানেলে দেয়া সাক্ষাৎকারে পাক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর ছেলে জানিয়েছেন, আহসান ইকবালের অবস্থা আশংকাজনক নয়।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী এবং বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতারা এই ঘটনার নিন্দা করেছেন।

পাকিস্তানে যখন জুলাই বা আগষ্ট মাসে নির্বাচন হওয়ার কথা তার আগে এই ঘটনা ঘটলো।

Leave a Reply