‘যাদের সংসদে প্রতিনিধি নেই, তাদের নির্বাচনকালীন সরকারে থাকার সুযোগ নেই’

জাতীয়

খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম বলেছেন, জাতীয় সংসদে যাদের প্রতিনিধিত্ব নাই, তাদের নির্বাচনকালীন সরকারে থাকার কোনও সুযোগ নাই। কোনও দল যদি নির্বাচনে অংশগ্রহণ না করে, তাহলে সেই দল বিলীন হয়ে যাবে।

তিনি বলেন, ‘২০১৮সালের শেষের দিকে সবার অংশগ্রহণে সুষ্ঠু, স্বচ্ছ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নির্বাচনকালীন সরকারের দ্বায়িত্ব পালন করবেন। নির্বাচন কমিশন নির্বাচনের আয়োজন করবেন। আগাম নির্বাচন নিয়ে ধুম্রজাল সৃষ্টি করার কোনও পথ নাই।’

রবিবার সকাল ১১টায় কেরানীগঞ্জ মডেল থানার কলাতিয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজে এসব কথা বলেছেন খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম।

এসময় বিশ্ববিদ্যালয় কলেজটির নতুন চতুর্থ তলা ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন ও কলাতিয়া স্কুল-কলেজের সুপার মার্কেটের উদ্বোধন করেন তিনি।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী বলেন, আমরা ক্ষমতায় আসার পর বঙ্গবন্ধুর খুনিদের বিচার, দুর্নীতিবাজদের বিচার, ১০ ট্রাক অস্ত্র মামলার বিচার এবং যারা এতিমদের টাকা মেরে খায় তাদের বিচার করতে পেরেছি।

এসময় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে উদ্দেশ করে তিনি বলেন, আজকে দুর্নীতির দায়ে আপনাকে আদালত সাজা দিয়েছেন। আগামী নির্বাচনে আপনি অংশগ্রহণ করতে পারবেন কিনা তা দেখার বিষয় আদালতের, আমাদের নয়।

এসময় কলাতিয়া উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি শাহজাহান ভূঁইয়ার সভাপতিত্বে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, আওয়ামী লীগ নেতা ইউসুফ আলী চৌধুরী সেলিম, হাজী আবু সিদ্দিক, আই কে শাহীন, মো. আলাউদ্দন, অ্যাডভোকেট এনামুল হক, ডাক্তার ইফতেখার আহমেদ শাওন, আলতাপ হোসেন বিপ্লব, কৃষকলীগ নেতা জাকিউদ্দিন রিন্টু, কলাতিয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের অধ্যক্ষ মো. লিয়াকত আলী, কলাতিয়া স্কুল অ্যান্ড কলেজের প্রধান শিক্ষক মো. এনামুল হক ও যুবলীগ নেতা শেখ শাহাদাৎ হোসেন প্রমুখ।

Leave a Reply